মোবাইল ফোন ভালো রাখার ১০ টি টিপস

মোবাইল ভালো রাখার টিপস

আমরা সবাইই মোবাইল ফোন ইউজ করি আর এটা আমাদের খুবই শখের একটা জিনিস। একই সাথে এটা খুবই জরুরি একটা পার্ট ও। আমাদের প্রতিটা কাজের সাথে নানাভাবে জড়িয়ে আছে এই মোবাইল ফোন। আমরা সবাইই চাই আমাদের মোবাইল ফোন যেন দীর্ঘদিন আমাদের সার্ভিস দেয় ভালো ভাবে। কিন্তু সেটা কীভাবে সম্ভব?

 

মোবাইল ফোন ভালো রাখার ১০ টি টিপস

 

আপনি চাইলে কিছু টিপস ফলো করে আপনার ফোন থেকে দীর্ঘ সময় খুব ভালো আউটপুট বের করে আনতে পারেন। আজকের এই ব্লগ পোস্টে এমন ১০ টি টিপস নিয়ে কথা বলবো, যা ফলো করে আপনি খুব সহজেই আপনার মোবাইল ফোনকে দীর্ঘদিন ভালো কন্ডিশনে রাখতে পারবেন। তাহলে আর কথা না বাড়িয়ে আসুন চলে যাওয়া যাক মুল কন্টেন্টে।

 

ভালো স্ক্রিন প্রটেক্টর এবং ফোন কেইস ইউজ করুন

 

ফোনের স্কিন প্রটেশন নিয়ে যথেষ্ট সতর্ক হওয়ার প্রয়োজন। কারন একসিডেনলি আপনার হাত থেকে ফোন পড়ে গেলে যদি স্ক্রিন প্রটেকশন না থাকে, তাহলে সরাসরি ডিস্প্লে নষ্ট হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে। এই জন্য স্ক্রিন প্রটেকশন থাকা খুবই জরুরি। আবার এটা ও নানা প্রকার রয়েছে, আপনার উচিত হবে সবচেয়ে ভালো মানের স্ক্রিন প্রটেক্টর ইউজ করা।

 

একই সাকে ফোনের ব্যাকসাইডের জন্য ও একটা হাই কোয়ালিটি কেস ইউজ করা জরুরি। এটা আপনার ফোনের বডিতে কোন প্রকার স্ক্র্যাচ পড়া থেকে ফোনকে বাঁচায়। আবার অনেক সময় লো কোয়ালিটি ফোন কেস নিজেই ফোনের ব্যাকে স্ক্র্যাচ ফেলে দেয়, সেসব থেকে সতর্ক থাকতে হবে।

 

অতিরিক্ত গরম থেকে ফোন দূরে রাখুন

 

ওভারহিটিং আপনার ফোনের লাইফ দ্রুত নষ্ট করে ফেলবে। তাই যতটা সম্ভব এটাকে নরমাল আর ন্যাচারাল তাপমাত্রায় রাখতে হবে। এটা করতে পারলে আপনি আপনার ফোন থেকে সবচেয়ে বেশী সময় ভালো আউটপুট পাবেন।

 

চেষ্টা করুন ফোন সব সময় পরিষ্কার রাখতে

 

অবশ্যই ফোনকে ধুলাবালি থেকে দূরে রাখার চেষ্টা করতে হবে। যদি ও সব সময় হয়তো এটা সম্ভব হবে না, কিন্তু চেষ্টা করতে হবে যেন ফোন পরিষ্কার থাকে। আর তা না হলে একটা নির্দিষ্ট সময় পর পর আপনি এটাকে টিস্যু দিয়ে মুছে পরিষ্কার করতে পারেন। ফোন পরিষ্কার থাকলে সেটা ইউজ করা ও ভালো লাগে।

 

ব্যাটারির যত্ন নিন

 

আপনার ফোনের অন্যতম একটা গুরুত্বপুর্ন পার্ট হচ্ছে আপনার ব্যাটারি। কারন ব্যাটারির হেলথের উপরে অনেক কিছুই নির্ভর করে। কিছু টিপস ফলো করে আপনি আপনার ব্যাটারির হেলথে ভালো রাখতে পারেন।

 

ফোন সব সময় ফুল চার্জ দিবেন এবং আবার ১০% এ গেলে চার্জে লাগাবেন, আবার ফুল চার্জ করেই খুলবেন, এর আগে নাহ। ফাকে ফাকে একটু একটু চার্জ দিবেন নাহ।

 

ফোন চার্জের একটা শিডিউল করে নিতে পারেন, এটা আপনার ব্যাটারি হেলথের জন্য খুবই জরুরি।

 

সব এপ আপডেটেড রাখুন

 

আমাদের ফোনে যত এপস আছে, দরকারি, সব এপসকেই আপডেটেড রাখতে হবে। এটা আপনাকে ফাস্ট এবং স্মুথ ইউজিং এক্সপেরিয়েন্স প্রদান করবে। এবং একই সাথে এপ গুলো থাকবে সিকিউরড। আপনি ইউজ করতে পারবেন এপ গুলোর লেটেস্ট ফিচার গুলো।

 

আপনি প্রায়ই হয়তো আপনার গুগল প্লে স্টোরে এপ আপডেটের নটিফিক্যাশন দেখে থাকবেন, এখন থেকে এটা এভয়েড করবেন নাহ।

 

অদরকারি এপস ডাউনলোড করা থেকে বিরত থাকুন

 

অদরকারি এপস প্রথমেই আপনার মেমোরিতে স্পেস নষ্ট করে এবং আপনার র্যামে ও স্পেস নষ্ট করে। এটা আপনার ফোনকে স্লো করে ফেলতে পারে। আর কিছু কিছু আন-অফিসিয়াল এপের কারনে আপনার ফোন হ্যাকিং এর শিকার পর্যন্ত হতে পারে।

 

এইজন্য শুধু মাত্র অফিসিয়াল এবং খুবই দরকারি এপগুলোই ফোনে রাখুন, অদরকারি সব এপস আজই ডিলিট করে ফেলুন ফোন থেকে। আপনি নিজেই বুঝতে পারবেন, যে আপনার ফোনে একটা চেঞ্জ আসছে এবং এটা আগে থেকে বেটার স্পীড দিচ্ছে।

 

ফোনে যথেষ্ট পরিমান স্পেস খালি রাখুন

 

ফোন মেমোরি এবং আপনার এস ডী কার্ড দুই জায়গাতেই আপনার উচিত হবে স্পেস খালি রাখা। স্পেস খালি রাখলে স্টোরেজ খুব দ্রুত ডাটা রিড এবং রাইট করতে পারে, এর ফলে আপনার ইউজিং এক্সপেরিয়েন্স হয় বেটার।

 

তো এখন থেকে চেষ্টা করবেন অদরকারি লার্জ ফাইল গুলো ফোন থেকে সরিয়ে ফেলার। আর ফাইল স্টোরেজের জন্য এক্সটার্নাল মেমোরি, পেনড্রাইভ বা হার্ডডিস্ক ইউজ করতে পারেন। ফোনে মেমোরিতে ফাইল জমা করে রাখা মোটে ও গুড প্র্যাকটিস নয়।

 

ফোনের চার্জিং পোর্ট পরিষ্কার রাখুন

 

ফোনের চার্জিং পোর্ট খুবই সেনসিটিভ একটা পার্ট। আপনার সব সময় উচিত এটার যত্ন নেওয়া এবং এটাকে পরিষ্কার রাখা। না হলে এটা দ্রুত নষ্ট হওয়ার সম্ভাবনা আছে।

 

আর ফোনের চার্জিং পোর্ট নষ্ট হলে সেটা ফিক্স করা যথেষ্ট সমস্যার কাজ।

 

নিয়মিত রিস্টার্ট করুন

 

আমরা অনেকেই ফোনকে মাসের পর মাস বিনা অন-অফ করে চালু করে রাখি। এটা মোটে ও ভালো ব্যাপার নাহ। ফোনকে নিয়মিত রিস্টার্ট দেওয়া উচিত। প্রতিদিন না হলে ও ২-৩ দিন পর পর একবার ফোন রিস্টার্ট দেওয়া জরুরি।

 

যত্ন সহকারে ফোন নাড়াচাড়া করুন

 

ফোনকে যথেষ্ট যত্ন সহকারে হ্যান্ডেল করতে হবে। কারন এটা যথেষ্ট নাজুক জিনিস। আপনি চাইলেই এটাকে এখানে ওখানে ছুড়ে ফেলে রাখতে পারবেন নাহ। অনেকেই আছে, যারা ফোন সোফায় বা বেডে ছুড়ে ফেলেন, এটা খুবই বাজে অভ্যাস। কারন আপনি এভাবে ফোন রাখলে আপনার ফোনের ভিতরকার পার্টসে গন্ডগোল হতে পারে, যদি সেটা বেশী জোরে কোথাও গিয়ে পরে। আবার ওয়াশরুমে ও ফোন ব্যবহার থেকে বিরত থাকা উচিত।

 

এই টিপস গুলো সঠিকভাবে মেনে চললে, আপনি খুব ভালো ভাবে আপনার ফোন চালাতে পারবেন দীর্ঘ সময়। আর এসব টিপস ফলো করা মোটে ও কষ্টসাধ্য কিছু না। এসব খুবই সাধারণ এবং রেগুলার টিপস, যা আপনি চাইলেই ফলো করতে পারেন আর আপনার ফোনের লং একটা লাইফ এনসিউর করতে পারেন।

Share With

Share on facebook
Share on twitter
Share on email

You may also like

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Most Popular Post

Have You Lost Data!

We have ability of recuperating your data from all kind of digital storage devices